ছোটবেলায় প্রায় সকলেই উল্টো হাওয়াই চটি পরে, ডান পায়ের চটি বাম পায়ে আর বামেরটা ডানে। ব্যাতিক্রম থাকতেই পারে, আমি তর্কে যাবো না। আজ মনটা গোবি মন্চরিয়ান খাবে খাবে বায়না ধরেছিল। মনের কাছে আমরা সকলেই হার মানি। গুটি গুটি পায়ে দোকানে পৌঁছে ১/২ প্লেট অর্ডার দিয়ে বসে আছি। খেয়াল করলাম একটি বাচ্চা উল্টো হাওয়াই চটি পরে বসে আছে। হাতে ফোন, তাতে মন দিয়ে গেম খেলছে। আমার কেমন অস্বস্তি শুরু হয়ে গেলো। চোখের সামনে একজন উল্টো হাওয়াই চটি পরে বসে থাকবে, আর আমি সেটা ঠিক করার চেষ্টা করবো না? মনের মধ্যে থাকা পরোপকারী ভালো মানুষটি গর্জে উঠলো। বাইরে থেকে সে গর্জন শোনা যায় না।

আমি ছেলেটাকে ডাকলাম, বললাম হাওয়াই চটি উল্টো, এ পায়ের তা ও পায়ে ঠিক করে পরে নাও। ছেলেটি মুচকি হেসে বললাম,

“আঙ্কেল, ওটা স্টাইল”

আমি বোকা হাসি হাসলাম। আমার বোঝা উচিৎ ছিলো। যে ছেলে এই বয়সে পোক্ত হাতে গেম খেলছে, সে নিশ্চই ভুল করে উল্টো চটি পরবে না। অবশ্যই ওটা স্টাইল। 😖🤐

সঞ্জয় হুমানিয়া
১৯সে জুলাই ২০২১

★ আমার লেখায় অজস্র বানান ভুল থেকে যায়, পাঠকের চোখে পড়লে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন ★

Facebook Comments Box