জীবন খাতার প্রতি পাতায় যতই লেখ হিসাব নিকাষ কিছুই রবে না
Image courtesy: https://www.news18.com/news/india/cartoon-5-730824.html

ধর্মের নামে খুনসুটি

ভালো লাগলে শেয়ার করবেন

চলুন আমার রাজনীতির নামে আর ধর্মের নামে খুনসুটি তে মাতি,
মজা লুটুক বিজয় মাল লিয়া আর নীরব মোহ দি।

ব্যাস্ত থাকি আঁধার কার্ড লিংক করার লাইনে,
আর চুপিসাড়ে কেটে যাক টাকা ব্যাংকে লো ব্যালান্স ফাইনে।

গেরুয়া আর সবুজ রং পেন্সিল বলছে, “থাকবো না এক সাথে”
চিত্রকার মহাশয় পড়েছেন কি ভীষণ মহা সমস্যাতে।

ফলের দোকানের খেজুর খুব চিন্তায়। বুঝতে পারছে না, কোন বাড়ি সে যাবে?
সে কি পূজার প্রাসাদ? নাকি রোজার ইফতার হবে?

সাদা সুতোর উপরে অধীকার কার? আতর লাগানো সাদা পাঞ্জাবীটার?
নাকি টোপরের সাথে ম্যাচিং করেছে যে গিলে করা কুর্তার?

রেওয়াজি খাসী কেটেছে মিঞা ভাই, তা খেলে কি জাত যাবে?
আবার মুরগির দোকানা তো অবিনাশ কুন্ডু।
আড়াই পোঁচে কি কেটেছে মুরগির মুণ্ডু?

সেলিব্রেসনে বিরিয়ানী চাই! একটি আলু কি extra পাওয়া যাবে ভাই?
গন্ধ থাক শুধু মিঠা আতরের, এখানে সাম্প্রদিকতার স্থান নাই।

হেন-শ্রী, তেন-শ্রী। “শ্রী” শব্দ তো সাম্প্রদায়িক।
নেওয়ার সময় অত ভাবিনা মশাই, আমরা তখন সুবোধ আর অমাইক।

গোঁফ দাঁড়ি, আজকাল বড় বাড়াবাড়ি, গোঁফ দিয়ে যাবে চেনা।
গোঁফের কি দোষ বলুন? কারো কারো তো গোঁফই ওঠে না।

ইংরেজ কে বেশি কাঠি করতো যে বাঙালি, মেরুদণ্ড ভেঙে দেওয়া হলো সেই বাংলার।
fevicol ও জুড়তে পারলো না, এত বছরের স্বাধীনতার পর।

Image courtesy: https://www.news18.com/news/india/cartoon-5-730824.html
ভালো লাগলে শেয়ার করবেন
Avatar
Written by
সঞ্জয় হুমানিয়া
Join the discussion

Please note

This is a widgetized sidebar area and you can place any widget here, as you would with the classic WordPress sidebar.