প্রত্যেকের জীবন এক একটি উপন্যাস, প্রথম পাতায় জন্মের শেষ পাতায় মৃত্যু!

প্রথম দীঘা ভ্রমণের অভিজ্ঞতা

Share:

জীবনের প্রথম ভ্রমনের অভিজ্ঞতা লিখতে বসলাম। আলোআঁধারি স্মৃতি কে আশ্রয় করে লেখা শুরু। কিছু ঘটনা মনে আছে, আর কিছুটা আবছা। পুরোনো স্মৃতি বা ঘটনা লিখতে বসলে এই একটাই সমস্যা, একটু জল মেশাতে হয়। টাটকা ঘটনা হলে আমি জল মেশাই না, ৯৯% খাঁটি থাকে। আমি যে তখন কোন শ্রেণীতে পড়তাম কিছুই মনে নেই। ছবিতে আমাকে বেশ খোকা খোকা লাগছে। পাঠকদের কাছেই ছেড়ে দিলাম, আমার বয়স ও আমি কোন শ্রেণীতে পড়তাম সেটা অনুমান করে নেবার।

বাড়িতে হথাৎ একদিন কথায় কথায় কোথাও একটু বেড়িয়ে আসার কথা উঠলো। ততদিন আমার কাছে বেড়ানোর জায়গা বলতে মামা বাড়ি বা মাসি বাড়ি। স্কুল ছুটি হলেই এই দুয়ের মধ্যে কোনো এক যায়গায় গিয়ে ছুটি কাটিয়ে আসা। কিন্তু সেবার বাবা বললো, চলো এবার আমরা সবাই দীঘা ঘুরে আসি। বাড়িতে সকলের চোখ উজ্জ্বল হয়ে উঠলো। যে সময়ের ঘটনা এটা, তখন আমরা সদ্য বারাসাতর নতুন বাড়িতে থাকতে শুরু করেছি।

[fb_pe url=”https://www.facebook.com/SanjayHumania/posts/130803370367147″ bottom=”30″]
Share:
Written by
Sanjay Humania
Join the discussion

Sanjay Humania

আমার নিঃশব্দ কল্পনায় দৃশ্যমান প্রতিচ্ছবি, আমার জীবনের স্মৃতি, ঘটনা ও আমার চারপাশের ঘটনার কেন্দ্রবিন্দু থেকে লেখার চেষ্টা করি। প্রতিটি মানুষেরই ঘন কালো মেঘে ডাকা কিছু মুহূর্ত থাকে, থাকে অনেক প্রিয় মুহূর্ত এবং একান্তই নিজস্ব কিছু ভাবনা, স্বপ্ন। প্রিয় মুহূর্ত গুলো ফিরে ফিরে আসুক, মেঘে ডাকা মুহূর্ত গুলো বৃষ্টির সাথে ঝরে পড়ুক। একান্ত নিজস্ব ভাবনা গুলো একদিন জীবন্ত হয়ে উঠবে সেই প্রতীক্ষাই থাকি।
– Sanjay Humania (সঞ্জয় হূমানিয়া)